জেরার পর পাপনকে যে তথ্য দেন সাকিব

ঢাকা: জলটা একটু ঘোলাই করেই খেলেন সাকিব আল হাসান। তবে সাকিবের জল ঘোলায় হাবুডুবু খেয়েছে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডও (বিসিবি)।

অবশেষে রুদ্ধশ্বাস বৈঠকের পর দ. আফ্রিকায় যেতে রাজি হন সাকিব। কিন্তু প্রশ্ন হচ্ছে হঠাৎ সাকিবের এ সিদ্ধান্ত পরিবর্তন। বোর্ডও ছুটি দিয়েছিল সাকিবকে। কিন্তু এখন আবার ছুটি বাতিল করে সাকিবের আফ্রিকায় যাওয়ার সিদ্ধান্ত হল।

বোর্ড সভাপতি বলেন, ‘সাকিব দক্ষিণ আফ্রিকায় যাবে। কালই রওনা দেবে। তবে, এমনও হতে পারে যে ও সব খেলা খেলবে না। হয়তো টিম ম্যানেজমেন্ট ওকে বিশ্রাম নেবে। কিংবা সাকিব নিজে থেকে বিশ্রাম নেবে। এই নিয়ে এই আলোচনা এখানেই শেষ।

এদিকে বৈঠকে পাপনের প্রশ্নের পর কিছু তথ্য দিয়েছিলেন সাকিব। পাপন নিজেই জানিয়েছেন এ তথ্য। তিনি জানান, সাকিব বলেছে, ওর সিদ্ধান্ত নিতে একটু সমস্যা হচ্ছিল। বলেছিল, মানসিক ভাবে একটু বিপর্যস্ত। এখন সেই অবস্থা নেই। ওকে আমরা আমাদের সফরের পুরো পরিকল্পনা দেখিয়েছি। সেটা দেখে ও নিজেই বলেছে যে সব ফরম্যাটে খেলবে। আর আমি মনে করি, এটাতে আমাদের টিম স্পিরিটও অনেকটাই বেড়ে যাবে।’

সাকিব নিজেও তাল মিলিয়ে বলেন, ‘এখন আগের থেকে ভাল আছি। আশা করি, দক্ষিণ আফ্রিকার প্রাকৃতিক সৌন্দর্য্যে মানসিক অবসাদ অনেকটাই কেটে যাবে। দক্ষিণ আফ্রিকায় সব ফরম্যাটেই খেলবো। আশা করি, দলকে বেটার কিছু এনে দিতে পারবো।’

শুরুতে দক্ষিণ আফ্রিকা সফরের জন্য ঘোষণা করা দলে সব ফরম্যাটেই ছিলেন সাকিব আল হাসান। যদিও, এর আগেই তিনি বোর্ডের কাছে ছয় মাসের জন্য টেস্ট ক্রিকেট থেকে ছুটি চেয়ে রেখেছিলেন। এরপর দুবাইয়ে বিজ্ঞাপনের কাজে রওনা হওয়ার আগে তিনি বিমানবন্দরে গণমাধ্যমকে বলে যান, আন্তর্জাতিক ক্রিকেট খেলার মত মানসিক বা শারিরীক অবস্থানে নেই তিনি।

এরপর নড়েচড়ে বসে বোর্ডও। বোর্ড সভাপতি গণমাধ্যমে আবারও মুখ খোলেন। তবে, সাকিবকে আগামী ৩০ এপ্রিল পর্যন্ত ঘরোয়া ও আন্তর্জাতিক সব ক্রিকেট থেকেই ছুটি দেওয়া হয়। তবে, এর মধ্যে ঢাকা প্রিমিয়ার ডিভিশন ক্রিকেট লিগের ম্যাচও ছিল, যেখানে সাকিবের মোহামেডানের হয়ে খেলার কথা।

এর মধ্যেই বিসিবি আবার নতুন করে চুক্তিবদ্ধ ক্রিকেটারদের তালিকা প্রকাশ করে গত বৃহস্পতিবার। সেখানে দেখা যায় সব ফরম্যাটেই রাখা হয়েছে সাকিবকে। ফলে, আবারও নতুন করে শুরু হয় আলোচনা ও জল্পনা-কল্পনা।

এরপর শনিবার বোর্ডে সাকিবের সাথে বোর্ড সভাপতি সহ বোর্ডের অন্যান্য কর্মকর্তারা বসেন। সেখানে, সাকিব দক্ষিণ আফ্রিকা সফরে যাওয়ার সিদ্ধান্ত জানান। ফলে, এখন আপাতত এই বিতর্কের অবসান হল। সাকিব দক্ষিণ আফ্রিকা সফরে থাকছেন, এবং খেলবেন সব ফরম্যাটেই।

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*