‘তারা দেখিয়েছে কিভাবে ব্যাটিং করতে হয়, কিভাবে বোলিং করতে হয়’

এই মাত্র মাসখানেক আগেই দক্ষিণ আফ্রিকা সফরে নাকানি-চুবানি খেয়েছে ভারতের মতো শক্তিশালী দল। প্রোটিয়াদের মাটিতে ৩-০ ব্যবধানে ওয়ানডে সিরিজ হেরে হোয়াইটওয়াশের লজ্জা পেয়েছিল রোহিত শর্মা-বিরাট কোহলিরা।

মাস ঘুরতেই সেই প্রোটিয়াদের ডেরায় হাজির বাংলাদেশ। ভারতের বিপক্ষে যেই দল খেলেছিল, সেই একই দলের বিপক্ষে তিন ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজ খেলতে হবে তামিম-সাকিবদের। এর আগে আফ্রিকার মাটিতে কোনো জয় নেই বাংলাদেশের। সব হিসেব-সমীকরণ যখন ভয় দেখাচ্ছে তখনই ডি-কক-বাভুমাদের চোখ রাঙানি দিয়ে প্রথম ওয়ানডেতে জয তুলে নিল টাইগাররা। যেনো এক বার্তাই দিয়ে রাখলো এত সহজে পার পাচ্ছো না তোমরা!

দ্বিতীয় ওয়ানডেতে শক্তিশালী আফ্রিকা ঘুরে দাড়াতেই তৃতীয় ওয়ানডেতে বল হাতে গর্জে উঠলো তাসকিন-সাকিবরা। ব্যাট হাতে আলো ছড়ালো লিটন-তামিম। আফ্রিকার দূর্গ ভেদ করে প্রথমবারের মতো স্বাগতিকদের মাটিতে তাদেরই বিপক্ষে সিরিজ জয়ের ইতিহাস লিখলো লাল সবুজের বাংলাদেশ।

এমন এক সিরিজ হারের পর দক্ষিণ আফ্রিকার অধিনায়কও মানছেন তিন বিভাগেই তাদেরকে রীতিমতো উড়িয়ে দিয়েছে বাংলাদেশ দল। স্বীকারও করলেন নিজ মুখে। প্রোটিয়া অধিনায়ক বললেন, আমি মনে করি বাংলাদেশ আমাদের চেয়ে সকল বিভাগেই ভালো করেছে। তারা দেখিয়েছে কিভাবে ব্যাটিং করতে হয়, তারা দেখিয়েছে কিভাবে বোলিং করতে হয় ও মাঠে থাকতে হয়। তাদের ভালো করার তীব্র চেষ্টা ছিল।

মাত্র মাসখানেক আগেই ভারতের বিপক্ষে সিরিজ জয়ের পর বাংলাদেশের বিপক্ষে হারে হতাশ বাভুমা। প্রোটিয়া অধিনায়ক জানালেন, ভারতের বিপক্ষে সিরিজে আমরা কিছু আগ্রসী পদক্ষেপ নিয়েছিলাম। কিন্তু এই সিরিজে আমরা পিছু হেটেছি। এটাই আমাদের জন্য হতাশাজনক। আমাদের এখনও অনেক কাজ করা বাকি। আমরা রীতিমতো ছিটকে গিয়েছি। আমরা ভারতের সাথের সিরিজেও খুব ভালো করেছি কিন্তু আমি মনে করি, বাংলাদেশ সিরিজে আমরা যথেষ্ট ভালো ছিলাম না।

তবে এসবকে অজুহাত হিসেবে দাড় করাতে নারাজ প্রোটিয়া অধিনায়ক। তার মতে, তিন বিভাগেই আমরা বাংলাদেশের থেকে পিছিয়ে ছিলাম। আমাদের পারফরম্যান্স জয়ের জন্য যথেষ্ট ছিল না।

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*