পরশু দিনও অভিষেককে বকাবকি করেছি, একদমই যত্ন নিচ্ছিল না : তৃণা

পরশু দিনও অভিষেককে বকাবকি করেছি, একদমই যত্ন নিচ্ছিল না তৃণা

টালিউডের এক সময়ের জনপ্রিয় নায়ক অভিষেক চ্যাটার্জি মারা গেছেন। বৃহস্পতিবার (২৪ মার্চ) ভোরে নিজ বাড়িতেই শেষ নিশ্বাস ত্যাগ করেন তিনি। মৃত্যুকালে এই অভিনেতার বয়স হয়েছিল ৫৭ বছর।

অভিষেকের মৃত্যুতে ভেঙে পড়েছেন ‘খড়কুটো’ ধারাবাহিকের গুনগুন, অর্থাৎ অভিনেত্রী তৃণা সাহা। পর্দায় তিনি অভিষেকের মেয়ের চরিত্রে অভিনয় করেছিলেন। পর্দার বাইরেও ছিল তাদের খুবই ভালো সম্পর্ক।

তৃণা বলেন, পর্দায় অভিষেক দা যেমন আমার বাবা ছিল, পর্দার বাইরেও বাবার মতোই ছিল। পরশু দিনও আমি তাকে খুব বকাবকি করেছি। তিনি শরীরের একদম যত্ন নিচ্ছিল না।

এই অভিনেত্রী আরও জানান, বেশ কিছু দিন ধরেই পেটের সমস্যায় ভুগছিলেন অভিষেক। পাশাপাশি ছিল লিভারের সমস্যাও। অসুস্থতা নিয়েই কাজ চালাচ্ছিলেন তিনি।

তার ভাষ্য, পরশু দিনও সেটে অভিষেক দা অসুস্থ হয়ে পড়েছিল। আমরা তাকে বিশ্রাম নিতে বলি। দুলাল দা (লাহিড়ি) তাকে ডেকে আনতে গিয়েছিল। অভিষেক দা তখন দুলালদার গায়েই বমি করে দেয়। আমরা ডাক্তার দেখাই। তারপর বাড়ি পাঠিয়ে দিই। এই অবস্থায় কালকেও শুটিং করেছে। ফোনে আমি বকাবকি করেছিলাম মানুষটাকে।

প্রসঙ্গত, ‘পথভোলা’ সিনেমার মধ্য দিয়ে বড় পর্দায় পথচলা শুরু করেন অভিষেক চ্যাটার্জি। নব্বইয়ের দশকে তিনি একাধিক হিট ছবিতে অভিনয় করেছেন। একক নায়ক হিসেবে কয়েকটি ছবিতে অভিনয় করলেও পার্শ্ব চরিত্রে অভিনয়ের জন্য তিনি বিপুল জনপ্রিয়তা পেয়েছিলেন। সম্প্রতি একাধিক ধারাবাহিকেও অভিনয় করতে দেখা গেছে তাকে।

সূত্র: আনন্দবাজার

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*